বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ১১:২৫ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম

সাপ্তাহিক অভিযোগ পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকের উপর সন্ত্রাসী হামলা, থানায় অভিযোগ

গাজিপুর প্রতিনিধি: গতকাল সন্ধ্যায় জাতীয় সাপ্তাহিক পত্রিকা অভিযোগ এর ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় ধর্ম বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য এবং বাংলাদেশ সাংবাদিক কল্যাণ সংগঠন, কেন্দ্রীয় কমিটি গভঃ রেজীঃ নং ৭৭৮/০৭, এর সভাপতি শেখ তিতুমীর সন্ত্রাসী হামলার স্বীকার হয়েছেন। এ বিষয়ে তিনি নিজে বাদী হয়ে ৪ জনের বিরুদ্ধে গাজিপুর জেলার কালিয়াকৈর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। উক্ত সন্ত্রাসী হামলাটি গতকাল সন্ধ্যায় ৭.১৫ মিনিটে গাজীপুর জেলার কালিয়াকৈর থানাধীন ভান্নারা বাজারের ইরানের জুতার দোকানের সামনে ঘটনা টি ঘটে এতে তিনি নিজে বাদী হয়ে ১। মোঃ জনি (৩০) পিতা আঃ রাজ্জাক, ২। রনি মিয়া (৩০) পিতা কাউসার মোল্লা, ৩। সাগর (২২) পিতা বিল্লাল ও ৪। পিয়াস (২৩) পিতা বাবুল কে বিবাদী করে কালিয়াকৈর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

অভিযোগে শেখ তিতুমীর বলেন, আসামীগণ ভান্নারা বাজারসহ কালিয়াকৈর থানার বিভিন্ন এলাকায় মাদক ও নেশাজাতীয় দ্রব্য কেনাবেচাসহ চাঁদাবাজি নানা অসামাজিক কাজে লিপ্ত। তাদের নামে কালিয়াকৈর থানায় একাধিক রয়েছে , কিন্তু তিনি প্রতিবাদ করায় তার সাথে বিবাদীদের সাথে দির্ঘদিন যাবৎ তাদের বিরোধ চলে আসছে। সেই বিরোধের জের ধরেই গতকাল সন্ধ্যায় তার উপর এই আকষ্মিক সন্ত্রাসী হামলা চালানো হয়। তিনি আরও বলেন ভান্নারা আফজাল মোল্লার বাড়ির পাশে চার রাস্তা মোড়ে,ইরানের জুতার দোকানের সামনে তিনি সন্ধ্যায় আসলে বিবাদী (২) তাকে ডাক দিয়ে আফজাল মোল্লার বাড়ির পাশে চার রাস্তার মোড়ে, রিফাদ স্টোরের সামনে বিবাদী ( ১) এর নিকট নিয়ে যান ,পরে বিবাদী(১) তার কাছে পাচঁ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে, তিনি যদি চাঁদা না দেন তাহলে এলাকা ছেড়ে চলে যেতে হবে বলে বাজে ভাষায় গালাগালি করে এলো পাথারী মারপিট করে সন্ত্রাসীরা ,বিবাদীরাসহ আরো অজ্ঞাতনামা ৫/৬ জন বেআইনীভাবে লাঠিসোটা, রড, রাম দা, নিয়ে প্রথমে পথ অবরোধ করেন ও পরে এলোপাতারীভাবে মারিলে শরীরের বিভিন্ন স্থানে জখম হয়। তখন তিনি মাটিতে পড়িয়া গেলে বিবাদী রনি মাথায় দারালো রড় দিয়ে তাকে হত্যার উদ্দেশে বুকে আঘাত করিলে তিনি তার ডান হাত দিয়ে সেটা ফেরান পরে তার ডান হাতে সেই দারালো রড় জখম রক্তাক্ত করে ফেলে এবং তার হাতে থাকা ভিভো মোবাইল যার বাজার মূল্য প্রায় ১৫,৫০০/ টাকা ও ক্যামন ব্রান্ডের দ ২০০-৭০০ মি.মি. ৩৮,০০০/ হাজার টাকা মূল্যের ক্যামেরা হামলাকারীরা ছিনিয়ে নেয়া, মূলতো মোবাইলে বিবাদীদের সকল প্রকার অবৈধ কার্যকলাপের প্রমানপত্র ছিলো।

সেই প্রমানপত্রগুলোকে সরিয়ে ফেলার জন্যই মোবাইলটি নিয়ে নেয়। এসময় বিবাদী সাগর পকেট থেকে নগদ ১৭০০০/ টাকা সহ মানিব্যাগ ছিনিয়ে নেয় ও বিবাদী সাগর বাদীর বাম হাত থেকে তার ব্যবহৃত ঘড়ির উপর লাঠি দিয়ে আঘাত করিলে ঘড়ি টি হাত থেকে পড়ে যাবার পর, বিবাদী সাগর ঘড়িটি ছিনিয়ে নেয়, যার বর্তমান মূল্য ২৫০০/টাকা , বাদী শেখ তিতুমীর আরও বলেন, তার চিৎকার শুণে আশে পাশের মানুষ আসা শুরু করলে বিবাদীগণ তাকে প্রাণ নাশের হুমকী দেয় এই নিয়ে আইনি ভাবে কিছু করলে বিবাদী (১) ও বিবাদী (২)তাকে মেরে লাশ গুম করে দিবে হুমকি দিয়ে চলে যায়। পরে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় তাকে আহত অবস্থায় কালিয়াকৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা গ্রহন করেন। তিনি আরু বলেন তাহার নামে মিথ্যা অপ-প্রচার করে আসতে ছিলো এলাকার কিছু প্রভাব শালী মূলতো তাদের সহায়তায় উপরে লিখিত বিবাদীরা সহ আরো অজ্ঞাত নামা ৫/৬ জন এইরুপ সন্ত্রাসী হামলা চালায়।

পরে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে শেখ তিতুমির কালিয়াকৈর থানায় গিয়ে নিজে বাদী হয়ে ৪ জনকে নামে ও আরও ৫/৬ জনকে অজ্ঞাতনামা করে একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

এ বিষয় সম্পর্কে জানার জন্য কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হওয়ায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

সুজন মাহমুদ/এ.এইচ

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com