বুধবার, ০৬ Jul ২০২২, ০৩:৩৯ পূর্বাহ্ন

সেচের পানি না পেয়ে ২ কৃষকের আত্মহত্যা: পাম্প অপারেটর সাখাওয়াত গ্রেফতার

রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে জমিতে সেচের পানি না পেয়ে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর দুই কৃষক বিষপানে আত্মহত্যার ঘটনায় পলাতক পাম্প অপারেটর মো. সাখাওয়াত হোসেনকে (৩০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ৩ এপ্রিল শনিবার  রাত ১টার দিকে তাকে গোদাগাড়ী থানার চব্বিশ নগর এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

গোদাগাড়ী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুল ইসলাম জানান, কৃষক অভিনাথ মার্ডি (৩৬) ও রবি মার্ডি (২৭) নামের দুই কৃষক বিষপানে মারা যান। তারা সম্পর্কে চাচাতো ভাই। তাদের মৃত্যুর পর স্বজনরা বিএমডিএর পাম্প অপারেটর সাখাওয়াতের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। বিএমডিএর পানি না পেয়ে ওই দুই কৃষক আত্মহত্যা করেন এবং এর জন্য দায়ী করা হয় পাম্প অপারেটর সাখাওয়াতকে। মামলার পর থেকেই পাম্প অপারেটর আত্মগোপনে ছিলেন। অনেক চেষ্টার পর শনিবার দিবাগত গভীর রাতে তাকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হই।

ওসি আরও জানান, রোববার (৩ এপ্রিল) দুপুরে তাকে আদালতে সোপর্দ করে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তিন দিনের রিমান্ড আবেদন করা হবে।

রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে ধানের জমিতে পানি না পাওয়ায় রাগে-ক্ষোভে বিষপান করেন অভিনাথ মার্ডি ও তার চাচাতো ভাই রবি মার্ডি।

২৩ মার্চ রাতে ধানের জমিতে পানি না পাওয়ায় রাগে-ক্ষোভে বিষপান করেন অভিনাথ মার্ডি ও ও তার চাচাতো ভাই রবি মার্ডি। পরেরদিন সকালে মারা যান অভিনাথ। ওইদিন রাত ৮টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান রবি মার্ডি।

স্থানীয়রা জানান, অভিনাথ উপজেলার ঈশ্বরীপুর মাঠে ধানের জমিতে পানি সেচ দেওয়ার জন্য বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (বিএমডিএ) ডিপ অপারেটর শাখাওয়াতের কাছে ১২ দিন ধরে ঘুরছিলেন। কিন্তু তাকে সেচের পানির দেওয়া হয়নি। এদিকে পানি শুকিয়ে ধানি জমি বিবর্ণ হতে থাকে। সবশেষ ২৩ মার্চ আবারো ডিপ অপারেটরের কাছে সেচের পানির জন্য যান অভিনাথ ও রবি। কিন্তু সিরিয়াল না পেয়ে তারা একসঙ্গে বিষপান করেন।

এদিকে সেচ নলকূপের অপারেটর সাখাওয়াত হোসেনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেছেন মৃত কৃষক অভিনাথ মার্ডির স্ত্রী রোজিনা হেমরম।

২৫ মার্চ সন্ধ্যা ৭টার দিকে রোজিনা হেমরম এজাহার নিয়ে থানায় গেলে মামলাটি গ্রহণ করেন পুলিশ। এ সময় রোজিনা হেমরমের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী-২ (সদর) আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা, রাজশাহী জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক আসরাফুল ইসলাম তোতা, জাতীয় আদিবাসী পরিষদ রাজশাহী জেলা সভাপতি বিমল চন্দ্র রাজোয়াড় ও তার পরিবারের সদস্যরা।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com