মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১০:১১ পূর্বাহ্ন

চুয়াডাঙ্গায় বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর পক্ষে থেকে একটি ঘর উপহার পেলেন আব্দুল রাজ্জাক

স্বাধীনতার সুবর্নজয়ন্ত্রী উপলক্ষে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সদস্যের জন্য বাহিনীর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম, বিপি, ওএসপি, এনডিসি, পিএসসি মহোদয়ের পক্ষ থেকে চুয়াডাঙ্গা জেলা সদর উপজেলার তিতুদহ ইউনিয়নের বড়শলুয়া দাস পাড়ার ভিডিপি সদস্য গৃহহীন মোঃ আব্দুর রাজ্জাক কে একটি ঘর উপহার দেওয়া হলো। মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) ভিডিও কনফারেন্স এর মাধ্যমে ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাকের ঘর, ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন বঙ্গবন্ধু কর্ণার ও চুয়াডাঙ্গা জেলা কমান্ড্যান্ট ও১৪ আনসার ব্যাটালিয়নের পরিচালক  তরফদার আলমগীর হোসেন  বঙ্গবন্ধু কর্ণার শুভ উদ্বোধন করেন বাহিনীর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম, বিপি, ওএসপি, এনডিসি, পিএসসি মহোদয়।

এ সময় বাহিনীর মহাপরিচালক মহোদয়ের পক্ষে নাম ফলক উন্মোচন করেন মোঃ তরফদার আলমগীর হোসেন পরিচালক ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন ডিঙ্গেদহ ও জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা (অতিরিক্ত দায়িত্ব), আরও উপস্থিত ছিলেন জনাব,  কামরুল ইসলাম সহকারী জেলা কমান্ড্যান্ট,  সাইফুল ইসলাম সার্কেল এ্যাডজুটেন্ট,  আরিফুর রহমান উপজেলা প্রশিক্ষক চুয়াডাঙ্গা সদর, মনিটরিং,  বিপুল হাসান, প্রধান শিক্ষক বড়শলুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ইউপি সদস্য ৬ নং ওয়ার্ড ও সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্য ৪,৫,৬ ও বিভিন্ন পদবীর কর্মকর্তা ও কর্মচারীগণ অংশগ্রহণ করেন।

পরিচালক ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন ডিঙ্গেদহ ও জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) বলেন আমাদের বাহিনীর মহাপরিচালক স্যারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় একজন গৃহহীন পরিবারকে একটি করে ঘর দেওয়া হয়েছে। যাহার নমুনা দুইটি রুম, দুইটি ফ্যান, দুইটি লাইট, একটি গোসলখানা, একটি টয়লেট, একটি গাজী পানির ট্যাংক ও একটি টিউবওয়েল প্রদান করা হচ্ছে। যার বরাদ্দ আমাকে দেওয়া হয়েছে তা ছাড়াও বাড়ির সৌন্দর্যের জন্য অতিরিক্ত ২০,০০০ টাকা, আমার জেলার ফান্ড থেকে ব্যায় করেছি।

উল্লেখ্য, গৃহহীন ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক পরিবার নিয়ে মানুষের বাড়িতে বসবাস করছিলেন ।

ঘর পেয়ে আনন্দে আত্মহারা ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক বলেন, মহান রাব্বুল আলামিন পৃথিবীর বুকে মানবজাতিকে অন্ধকার থেকে আলোর পথ দেখানোর জন্য বহু মনীষী পাঠিয়েছেন। তার মধ্যে অন্যতম বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর মহাপরিচালক স্যার। আমি আমার জীবনে পাকা ঘরে শুয়ে যেতে পারতাম না। আনসার বাহিনীর সহযোগিতায় আমার সে আশা পুরন হয়েছে। আজ আমি মহাপরিচালক স্যারের সদিচ্ছায় মুগ্ধ হয়ে আমার অন্তর থেকে তার প্রতি কৃতজ্ঞতা ও তার দীর্ঘায়ু কামনা করছি। সেই সাথে জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা স্যারের জন্য দীর্ঘায়ু কামনা করছি।

স্বাধীনতার সুবর্নজয়ন্ত্রী উপলক্ষে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর অস্বচছল সদস্যদের জন্য বাহিনীর মহাপরিচালক
মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম, বিপি, ওএসপি, এনডিসি, পিএসসি মহোদয়ের পক্ষ থেকে চুয়াডাঙ্গা জেলা সদর উপজেলার তিতুদহ ইউনিয়নের বড়শলুয়া দাস পাড়ার ভিডিপি সদস্য গৃহহীন মোঃ আব্দুর রাজ্জাক কে একটি ঘর উপহার দেওয়া হলো।

মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) ভিডিও কনফারেন্স এর মাধ্যমে ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাকের ঘর, ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন বঙ্গবন্ধু কর্ণার ও চুয়াডাঙ্গা জেলা কমান্ড্যান্ট বঙ্গবন্ধু কর্ণার শুভ উদ্বোধন করেন বাহিনীর মহাপরিচালক
মেজর জেনারেল মিজানুর রহমান শামীম, বিপি, ওএসপি, এনডিসি, পিএসসি মহোদয়।

এ সময় বাহিনীর মহাপরিচালক মহোদয়ের পক্ষে নাম ফলক উন্মোচন করেন মোঃ তরফদার আলমগীর হোসেন পরিচালক ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন ডিঙ্গেদহ ও জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা (অতিরিক্ত দায়িত্ব), আরও উপস্থিত ছিলেন জনাব মোঃ কামরুল ইসলাম সহকারী জেলা কমান্ড্যান্ট, মোঃ সাইফুল ইসলাম সার্কেল এ্যাডজুটেন্ট, মোঃ আরিফুর রহমান উপজেলা প্রশিক্ষক চুয়াডাঙ্গা সদর, মনিটরিং মোঃ বিপুল হাসান, প্রধান শিক্ষক বড়শলুয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, ইউপি সদস্য ৬ নং ওয়ার্ড ও সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্য ৪,৫,৬ ও বিভিন্ন পদবীর কর্মকর্তা ও কর্মচারীগণ অংশগ্রহণ করেন।

পরিচালক ১৪ আনসার ব্যাটালিয়ন ডিঙ্গেদহ ও জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা (অতিরিক্ত দায়িত্ব) বলেন আমাদের বাহিনীর মহাপরিচালক স্যারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় একজন গৃহহীন পরিবারকে একটি করে ঘর দেওয়া হয়েছে। যাহার নমুনা দুইটি রুম, দুইটি ফ্যান, দুইটি লাইট, একটি গোসলখানা, একটি টয়লেট, একটি গাজী পানির ট্যাংক ও একটি টিউবওয়েল প্রদান করা হচ্ছে। যার বরাদ্দ আমাকে দেওয়া হয়েছে তা ছাড়াও বাড়ির সৌন্দর্যের জন্য অতিরিক্ত ২০,০০০ টাকা, আমার জেলার ফান্ড থেকে ব্যায় করেছি।

উল্লেখ্য, গৃহহীন ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক পরিবার নিয়ে মানুষের বাড়িতে বসবাস করছিলেন ।

ঘর পেয়ে আনন্দে আত্মহারা ভিডিপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক বলেন, মহান রাব্বুল আলামিন পৃথিবীর বুকে মানবজাতিকে অন্ধকার থেকে আলোর পথ দেখানোর জন্য বহু মনীষী পাঠিয়েছেন। তার মধ্যে অন্যতম বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর মহাপরিচালক স্যার। আমি আমার জীবনে পাকা ঘরে শুয়ে যেতে পারতাম না। আনসার বাহিনীর সহযোগিতায় আমার সে আশা পুরন হয়েছে। আজ আমি মহাপরিচালক স্যারের সদিচ্ছায় মুগ্ধ হয়ে আমার অন্তর থেকে তার প্রতি কৃতজ্ঞতা ও তার দীর্ঘায়ু কামনা করছি। সেই সাথে জেলা কমান্ড্যান্ট চুয়াডাঙ্গা স্যারের জন্য দীর্ঘায়ু কামনা করছি।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 dailyamaderchuadanga.com