রবিবার, ২৫ Jul ২০২১, ০৭:১২ অপরাহ্ন

চুয়াডাঙ্গার গোরস্থান পাড়ায় স্বামীর নির্যাতনে স্ত্রী বাড়ী ছাড়া: পুলিশের উদ্যোগে সংসারে ফিরলো শান্তি

স্টাফ রিপোর্টার:
বিয়ের পর থেকেই বিভিন্ন সময়ে অমানুষিক নির্যাতনের স্বীকার দুই সন্তানের জননী সালমা খাতুন। দিন নির্যাতনের মাত্রা বেড়েই চলেছে। স্বামী নির্যাতন সইতে না পেরে শুক্রবার (৪ই মার্চ) রাতে বাড়ি থেকে অজানা উদ্দ্যেশ্যে পাড়ি জমায় সালমা খাতুন। দিনরাত খুঁজে  না পেয়ে সেই দিন রাতে স্বামী শাহাজাহান মোল্লা তার স্ত্রী সালমাকে ফিরে পেতে চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। পরদিন বিকেলে পুলিশ প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে সালমা খাতুনকে উদ্ধার করে।
নির্যাতিতা সালমা খাতুনের নিকট থেকে বয়ান শুনে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম সমস্যা সমাধানের জন্য সদর থানায়
নারী, শিশু ও বৃদ্ধ হেল্প ডেস্কে নিয়োজিত কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেন।
চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি আবু জিহাদ খান বলেন, চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার দক্ষিন গোরস্থানপাড়ার শাহাজাহান মোল্লার স্ত্রী সালমা খাতুন।   তার স্বামীর শারীরিক ও মানসিক অত্যাচার নির্যাতনের ফলে আর সহ্য করতে না পেরে কাউকে কিছু না বলে বাড়ি থেকে পালিয়েছিলেন।  গত শুক্রবার রাত থেকে সালমা খাতুনকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না-এ রকম একটি লিখিত অভিযোগ করেন তারই স্বামী শাহজাহান মোল্লা।
০৬ মার্চ  শনিবার  দুপুরে প্রযুক্তির ব্যবহার করে সালমা খাতুনকে আলমডাঙ্গা উপজেলার বাদেমাজু এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়।
পরে সালমা খাতুনের বক্তব্যের সত্যতা পাওয়ায় তার স্বামী শাহাজাহান মোল্লাকে কঠোরভাবে সতর্ক  এবং পুলিশের মধ্যস্থতায় তাদের সন্তানদের উপস্থিতিতে স্বামী-স্ত্রীর দীর্ঘদিনের অমিল কেটে শান্তি ফিরে আসে। স্বামী-স্ত্রী উভয়ে ভবিষ্যতে তাদের সন্তানদের নিয়ে একটি সুন্দর পরিবার গঠন করবেন মর্মে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হন।
আহসান আলম/এ.এইচ

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com

 www.bdallbanglanewspaper.com

Design & Developed BY Creative Zoone IT