শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল ২০২১, ০৪:৩৭ পূর্বাহ্ন

চুয়াডাঙ্গায় পুলিশ সুপারের মধ্যস্থতায় আছমিনা খাতুন ফিরে পেল তার সুখের সংসার

স্টাফ রিপোর্টারঃ
চুয়াডাঙ্গার পুলিশ সুপারের মধ্যস্থতায় আছমিনা খাতুন ফিরে পেয়েছে তার সুখের সংসার।
জেলা পুলিশের এক প্রেসবিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার বেগমপুর ইউনিয়নের ফোরশেদপুর গ্রামের মৃত আশরাফ আলীর মেয়ে আছমিনা খাতুনের (২৪)’র সাথে একই এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে শাহাবুল ইসলাম (৩০)। ইসলামি শরীয়া মোতাবেক গত ৪ বছর আগে তাদের বিয়ে হয়।
গত ১ বছর ধরে বিভিন্ন সময়ে শাহাবুল তার স্ত্রী আছমিনার নিকট বিভিন্ন অজুহাতে টাকা  দাবী করে আসছে।  আছমিনা বিভিন্ন সময়ে তার পিতার বাড়ী থেকে টাকা এনে তার স্বামীকে দেয়। এরপরও শাহাবুল আরো টাকার জন্য আছমিনা’কে চাপ প্রয়োগ করলে আছমিনা টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করে।  পরবর্তীতে শাহাবুল তার স্ত্রী আছমিনাকে শারীরিক ও মানষিক নির্যাতনসহ তালাকের ভয় দেখায়।
আছমিনা খাতুন বিভিন্ন জায়গায় তার সমস্যার সমাধান না পেয়ে অবশেষে চুয়াডাঙ্গার পুলিশ সুপারের নিকট একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম অভিযোগটি তার কার্যালয়ে অবস্থিত “উইমেন সাপোর্ট সেন্টার” এ কর্মরত নারী এএসআই মিতা রানী বিশ্বাস’কে দিলে তিনি উভয় পক্ষকে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে হাজির করেন। উইমেন সাপোর্ট সেন্টারের মাধ্যমে চুয়াডাঙ্গা  পুলিশ সুপার  জাহিদুল ইসলামের প্রত্যক্ষ মধ্যস্থতায় শাহাবুল ইসলাম ও আছমিনা খাতুন দম্পত্তি পুনরায় সংসার করতে সম্মত হয়।
ফলে উইমেন সাপোর্ট সেন্টারের কল্যাণে আছমিনা খাতুন ফিরে পেল তার সুখের সংসার।
আহসান আলম/ এ.এইচ

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com

 www.bdallbanglanewspaper.com

Design & Developed BY Creative Zoone IT