বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:৫৬ পূর্বাহ্ন

নওগাঁর রাণীনগরে ঘটনার ১৬ মাস পর হত্যা মামলা

রুহুল আ‌মিন, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি:
নওগাঁর রাণীনগরে ঘটনার দীর্ঘ ১৬ মাস পর হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত ২০১৯ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর গলায় দড়ির ফাঁস দিয়ে মুনিরা (৪৫) আত্মহত্যা করেছে এমন ঘটনায় রাণীনগর থানায় ইউডি মামলা দায়ের করেন মুনিরার স্বামী আজিজুল। এরপর তদন্তে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে এমন ময়না তদন্তের রির্পোটের ভিত্তিতে রাণীনগর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কালীগ্রাম সরদারপাড়া গ্রামে।
জানা গেছে, উপজেলার কালীগ্রাম সরদারপাড়া গ্রামের আফজাল সরদারের ছেলে আজিজুল একই উপজেলার রাতোয়াল গ্রামের ইয়াকুব আলীর মেয়ে মুনিরা বিবিকে ৩০ বছর আগে বিয়ে করেন। সংসার চলাকালো তাদের সংসারে দুই ছেলে ও এক মেয়ে জন্মগ্রহণ করে। ঘটনার দিন গত ২০১৯ সালের ২৬ সেপ্টেম্বর দুপুর আনুমানিক সাড়ে ১২ টার সময় মুনিরার মা সহিদা বিবি মোবাইল ফোনে জানতে পারেন যে তার মেয়ে বাড়ীর খলিয়ানে গাছের সাথে গলায় দড়ি দিয়ে আতœহত্যা করেছে। এঘটনায় ওই দিনই মুনিরার স্বামী আজিজুল বাদী হয়ে রাণীনগর থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করেন। মামলার প্রেক্ষিতে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়। এঘটনার দীর্ঘ সময় পর ময়না তদন্তের রির্পোট আসে মুনিরাকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। এঘটনায় শনিবার মুনিরার মা সহিদা বিবি বাদি হয়ে ময়না তদন্তের রির্পোটের প্রেক্ষিতে কে বা কাহারা তার মেয়েকে হত্যা করেছে মর্মে অজ্ঞাতনামাদের আসামী করে রাণীনগর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।
এ ব্যাপারে রাণীনগর থানার ওসি শাহিন আকন্দ বলেন, গলায় দড়ি দিয়ে স্ত্রী মুনিরা আতœহত্যা করেছে মর্মে প্রথমে স্বামী আজিজুল ঘটনার দিন থানায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করেন। এরপর ময়না তদন্তে শ্বাসরোধে হত্যার রির্পোট আসে। এতে মুনিরার মা সহিদা বিবি বাদী হয়ে অজ্ঞাতদের আসামী করে হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। মামলাটি সুষ্ঠু তদন্ত করে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি