মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ০৭:৪৭ অপরাহ্ন

শিরোনাম
চুয়াডাঙ্গায় ২১ বীর মুক্তিযোদ্ধা পুলিশ পরিবারের মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী প্রদান ঝিনাইদহের মহেশপুর সীমান্তে অবৈধভাবে প্রবেশের দায়ে দালালসহ আটক-২৮ ঝিনাইদহের মহেশপুরে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করলেন এমপি চঞ্চল কালীগঞ্জে মসজিদের ইমামদের আর্থিক অনুদান প্রদান ডিজিটাল বাংলাদেশের নাগরিক সেবায় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি চুয়াডাঙ্গায় আলমসাধুর ধাক্কায় ৪ বছরের শিশুর মৃত্যু লক্ষ্যকোটি মানুষের ভালোবাসার মাঝে, সর্বোচ্চ মা’য়ের ভালোবাসা- আলী মুনছুর বাবু চুয়াডাঙ্গায় মুড়ি প্রস্ততকারী মেসার্স ইনসাফ ট্রেডার্সকে জরিমানা চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গায় বোরো ধান চাল সংগ্রহ অভিযানের উদ্বোধন পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন  শেখ নজরুল ইসলাম

শুটিং সেটে কাদা ছোড়াছুড়ি উৎসবে মাতলেন ফেরদৌস-পূর্ণিমা (ভিডিও)

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলায় আবারও শুরু হয়েছে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের গাঙচিল উপন্যাস অবলম্বনে ‘গাঙচিল’ ছবির শুটিং।

আজ সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে সেই শুটিং সেটের একটি ঘটনা। ঘটনাটি সিনেমার কোনো দৃশ্য নয় বলে জানিয়েছেন ছবিটির মেকআপম্যান মোহাম্মদ খলিল।

মোহাম্মদ খলিলের ফেসবুক আইডি থেকেই ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে পড়ে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, কাদামাখা শরীর নিয়ে চিত্রনায়ক ফেরদৌস সহকারী পরিচালক আবুল কামাল আজাদকে জড়িয়ে ধরেছেন। তাকে কাদা মাখিয়ে দিচ্ছেন। এমন সময় চিত্রনায়িকা পূর্ণিমেও বসে থাকেননি। তিনিও সহকারী পরিচালকের শরীর কাদা মাখিয়ে দিতে এগিয়ে আসেন।

কাদা মাখামাখিতে ফেরদৌস, পূর্ণিমাকে যোগ দিতে দেখে এগিয়ে আসেন অভিনেতা আনিসুর রহমান মিলনও। এক পর্যায়ে মেকআপম্যান মোহাম্মদ খলিলকে জড়িয়ে ধরেন ফেরদৌস। তার শরীরেও কাদা মাখিয়ে দেন। ফেরদৌসকে সহযোগিতা করতে যোগ দেন পূর্ণিমাও। এভাবেই ছবির সব কলাকুশলীদের মধ্যে চলে কাদা মাখামাখি।

এমন ভিডিও ভাইরালের পর চিত্র তারকা ফেরদৌস বলেন, ‘শীতের মধ্যে কাদা মেখে শুট করাটা বেশ কষ্টকর। আমি, পূর্ণিমা আর মিলন কাদা মেখে শুটিং করেছিলাম। আমরা শীতে কাঁপছিলাম আর অনেকে তা দেখে মজা নিচ্ছিল। তাই ভাবলাম, তারাও আমাদের কষ্ট টের পাক। শট শেষ করে, সবার গায়ে কাদা মেখে দিই।’

ছবির পরিচালক নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল জানিয়েছেন, কোম্পানীগঞ্জে শুটিং চলবে আগামী সাত দিন। এ ছবিতে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করছেন ফেরদৌস ও পূর্ণিমা। ছবিতে সাংবাদিকের চরিত্রে দেখা যাবে ফেরদৌসকে। এনজিও কর্মীর ভূমিকায় অভিনয় করছেন পূর্ণিমা। বিশেষ একটি চরিত্রে রয়েছেন কলকাতার অভিনেত্রী ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তা। আরও রয়েছেন তারিক আনাম খান, আনিসুর রহমান মিলন, আহসানুল হক মিনু প্রমুখ।

১ ফেব্রুয়ারি থেকে গাঙচিল ছবির শেষ লটের কাজ শুরু হয়েছে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়ে ছবির পরিচালক নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল বলেন, এবারের লটের শুটিংয়ে ছবির প্রায় সব অভিনেতা-অভিনেত্রীই অংশ নেবেন। কোম্পানীগঞ্জে শুটিং শেষে ঢাকায় অল্প কিছু কাজের পর ক্যামেরা ক্লোজ হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2020 DailyAmaderChuadanga.com

 www.bdallbanglanewspaper.com

Design & Developed BY Creative Zoone IT